Text size A A A
Color C C C C
পাতা

কী সেবা কীভাবে পাবেন

অগ্নি নির্বাপণ/দুর্ঘটনায় সেবা পাওয়ার ধাপসমূহ:-

 

১. প্রস্তুতি পর্ব

২. সংবাদ গ্রহণ ও অপারেশনে গমন (এক্ষেত্রে যা করণীয়)

ক) অগ্নিকান্ড বা দুর্ঘটনা ঘটলে সাথে সাথে নিকটস্থ ফায়ার স্টেশনকে ফোন করতে হবে।

খ) নিজের পরিচয় দিতে হবে।

গ) দূর্ঘটনা স্থলের সঠিক ঠিকানা বলতে হবে।

ঘ) দূর্ঘটনা স্থলে দ্রুত পৌঁছার নিমিত্তে রাস্তার নাম ও পরিচিত স্থাপনার ধারনা দিতে হবে।

 

৩. অপারেশন পর্ব।

দূর্ঘটনা স্থলে র্পৌছার পর সার্বিক কাজে সহযোগিতা করা।

৪. প্রত্যাবর্তন ।

৫. অপারেশন পরবর্তী পর্ব।

 ফায়ার লাইসেন্স (অগ্নি-দুর্ঘটনা প্রতিরোধমূলক পরামর্শ সেবা)

১। স্থানীয় সহকারী পরিচালক/উপ-পরিচালক বরাবর ফায়ার সার্ভিসের নির্ধারিত ফরমপুরণপূর্বক নিম্নবর্ণিতকাগজপত্রসহ আবেদন করতে হবে :


ক) ট্রেড লাইসেন্স
খ) প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব ভবনে ব্যবসা পরিচালনা হলে পৌরসভা কর্তৃক প্রতিষ্ঠানের স্থাবর/অস্থাবরসম্পত্তির বার্ষিক মূল্যায়ণ পত্র।
গ) ভাড়াবাড়িতে ব্যবসা হলে ভাড়ার চুক্তিপত্র।
ঘ) রাজউক/পৌরসভা কর্তৃক অনুমোদিত স্থাপনার নকশা।
ঙ) প্রতিষ্ঠানটি লিমিটেড কোম্পানী হলে Memorandum of Articles (Certificate of Incorporation)

চ) প্রতিষ্ঠান সংক্রান্ত স্থানীয় জনপ্রতিনিধি কর্তৃক অনাপত্তি সনদ।
ছ) বহুতল বা বাণিজ্যিক ভবন হলে (৭ তলা বা ২৪ মিটার বা তদূর্ধ্ব) ফায়ার সার্ভিসের ছাড়পত্র।
জ) গার্মেন্টস প্রতিষ্ঠানের ক্ষেত্রে ফায়ার সার্ভিস নির্ধারিত তথ্য বিবরণী।


২। আবেদন প্রাপ্তির পর ০৭ (সাত) কর্মদিবসের মধ্যে অধিদপ্তর কর্তৃক নিয়োজিত পরিদর্শকের মাধ্যমে সংশিষ্ট
প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন করা হয়।
৩। পরিদর্শনের পর অগ্নি প্রতিরোধমূলক পরামর্শ প্রদান করা হয়।
৪। পরামর্শ মোতাবেক কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করার পর পুনরায় পরিদর্শন করা হয়।
৫। পরিদর্শন যুক্তিসঙ্গতভাবে সন্তোষজনক হলে সর্বোচ্চ ৯০ দিনের মধ্যে লাইসেন্স প্রদান করা হয়।
৬। যুক্তিসঙ্গত কারণে লাইসেন্স প্রদানের বিষয়ে সন্তুষ্ট না হলে মহাপরিচালক লাইসেন্সের আবেদন প্রাপ্তির ১২০
(একশত বিশ) দিনের মধ্যে আবেদনকারীকে শুনানীর সুযোগ প্রদান করবেন।
৭। মহাপরিচালকের নিকট হতে ক্ষমতাপ্রাপ্ত কোন কর্মকর্তার কোন সিদ্ধান্তে কোন ব্যাক্তি বা প্রতিষ্ঠান সংক্ষুব্ধ হলে
৩০ (ত্রিশ) দিনের মধ্যে বিষয়টি পুনঃ বিবেচনার জন্য মহাপরিচালকের নিকট আবেদন করবেন।
৮। উক্ত আবেদন প্রাপ্তির ৩০ (ত্রিশ) দিনের মধ্যে মহাপরিচালক সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন।
৯। উক্ত বিষয়ে মহাপরিচালকের সিদ্ধান্তে সংক্ষুব্ধ ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান নির্ধারিত ফি প্রদান সাপেক্ষে সরকারের নিকট
আপীল করতে পারবেন।
১০। আপীল প্রাপ্তির ৬০ (ষাট) দিনের মধ্যে সরকার তৎসম্পর্কে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত প্রদান করবেন।

বহুতল বা বাণিজ্যিক ভবনের ছাড়পত্র 

১। অগ্নি প্রতিরোধ ও নির্বাপন আইন-২০০৩ এর ৭নং ধারা অনুসারে ৭ তলা (২৪ মিটার) বা তদূর্ধ্ব ভবনের বা
বাণিজ্যিক ভবনের অগ্নি প্রতিরোধমূলক ছাড়পত্র প্রদান করা হয়।

২। স্থানীয় কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে বা সরাসরি মহাপরিচালক বরাবর সংশিষ্ট ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান আবেদন করবেন।

৩। আবেদনের সাথে ভবনের নকশা ও দলিল প্রদান করবেন।

৪। অতঃপর অত্র অধিপ্তর কর্তৃক মনোনীত পরিদর্শক ০৭ (সাত) কর্মদিবসের মধ্যে সংশিষ্ট ভবন পরিদর্শন করেন।

৫। পরিদর্শনের পর অগ্নি প্রতিরোধমূলক পরামর্শ প্রদান করা হয়।

৬। পরামর্শ মোতাবেক কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হলে শর্ত সাপেক্ষে পরবর্তী ০৭ (সাত) কর্মদিবসের মধ্যে ছাড়পত্র প্রদান করা হয়।

৭। পরিদর্শন যুক্তিসঙ্গত কারণে সন্তোষজনক না হলে ভবন ব্যবহারের অনুপযোগী মর্মে মহাপরিচালক ঘোষণা
করতে পারেন।

৮। ভবন ব্যবহারের অনুপযোগী ঘোষণার কারণে কোন ব্যক্তি সংক্ষব্ধ হলে তিনি উক্তরূপ ঘোষণার ৩০ (ত্রিশ) দিনের মধ্যে সরকারের নিকট আপীল করতে পারবেন।

৯। উক্ত আপীল প্রাপ্তির ৬০ (ষাট) দিনের মধ্যে সরকার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন।

এ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস 

১। অত্র অধিদপ্তর স্থানীয়ভাবে বা আন্তঃজেলা পর্যায় রোগী পরিবহনের নিমিত্তে জনসাধারনের জন্য এ্যাম্বুলেন্স
সার্ভিস প্রদান করে থাকে।

২। এ্যাম্বুলেন্স সার্ভিসের আওতায় শুধুমাত্র রোগীকে বাসা থেকে হাসপাতালে অথবা দুর্ঘটনার স্থান থেকে হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

৩। এ সেবার জন্য স্থানীয় পর্যায়ে বা পৌর এলাকায় ফোনের বা বার্তাবাহকের মাধ্যমে এ্যাম্বুলেন্স কল গ্রহণ করা
হয়।

৪। আন্তঃ জেলা পর্যায়ে বা দূরবর্তী কলের ক্ষেত্রে রোগী পরিবহনের জন্য নির্ধারিত ফরমপূরণপূর্বক পুর্ব অনুমোদন
নিতে হয়।

৫। রোগী পরিবহনের জন্য ভাড়ার হার নিম্নরূপ ঃ

ক) দেশের সকল মেট্রোপলিটন শহর এলাকাসহ সকল পৌর এলাকায় ১ মাইল/১ কিলোমিটার হতে
৫ মাইল/৮ কিলোমিটার পর্যন্ত ১০০ (এক শত) টাকা।

খ) ৫ মাইলের ঊর্ধ্বে হইতে ১০ মাইল অথবা ৮ কিলোমিটার হইতে ১৬ কিলোমিটার পর্যন্ত প্রতিকল
১৫০ (একশত) টাকা।

গ) দূরবর্তী/আন্তঃজেলা কলের ক্ষেত্রে প্রতি মাইল ১৫ (পনরো) টাকা ও প্রতি কিলোমিটার ৯/- (নয়) টাকা।

৬। এ্যাম্বুলেন্স সার্ভিসের আওতায় লাশ বহন করা হয় না।



অগ্নি প্রতিরোধমূলক মহড়া, পরামর্শ ও প্রশিক্ষণ সেবাঃ

১। উক্ত সেবা গ্রহণের জন্য স্থানীয় কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে বা সরাসরি মহাপরিচালক বরাবর আবেদন করতে হয়।

২। আবেদন প্রাপ্তির পর সংশিষ্ট প্রতিষ্ঠানকে অত্র অধিদপ্তর আর্থিক সংশেষ ও অন্যান্য শর্তাবলীসহ প্যাকেজ প্রস্তাব
প্রেরণ করে।

৩। সংশিষ্ট প্রতিষ্ঠান উক্ত শর্ত পালনে সম্মত হলে অত্র অধিদপ্তরের মনোনীত কর্মকর্তা সংশিষ্ট প্রতিষ্ঠানের সহিত
প্রয়োজনীয় সমন্বয়সাধন পূর্বক নিম্নলিখিত সেবা প্রদান করে থাকে :

            ক) অগ্নি প্রতিরোধ ও নির্বাপন বিষয়ে পরামর্শ প্রদান।
            খ) অগ্নি প্রতিরোধ ও নির্বাপন বিষয়ে প্রশিক্ষণ প্রদান।
            গ) অগ্নি প্রতিরোধ ও নির্বাপন বিষয়ে মহড়া পরিচালনা।

ভিশন

“ গতি, সেবা, ত্যাগ” আমাদের মূলমন্ত্র
দুর্যোগ মোকাবেলায় আমরা দৃঢ় প্রতিজ্ঞ।

“ Speed, Service, Sacrifice” is our motto

We are always committed to face the disaster.


মিশন

অন্যান্য সংস্থার সাথে সমন্বয় সাধন করে অগ্নি দুর্ঘটনাসহ যে কোন দুর্যোগে জান-মালের ক্ষয়ক্ষতি কমিয়ে আনা, দুর্ঘটনায় আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া, রোগী পরিবহনে এ্যাম্বুলেন্স সহায়তা প্রদান, বহুতল/বাণিজ্যিক ভবন, শিল্প কারখানায় অগ্নি দুর্ঘটনা রোধকল্পে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ, পরামর্শ ও মহড়া পরিচালনা এবং বেসামরিক প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা গ্রহণ করা।